থ্রি ইডিয়টসের রেঞ্চো হতে পারত একজন মিডিওকার রাজু রাস্তোগি

থ্রি ইডিয়টস মুভিটা আমার দেখা অন্যতম একটা সেরা মুভি। এই একটা মুভিই জীবনে সবচেয়ে বেশিবার দেখছি, প্রায় দশবারের বেশি। থ্রি ইডিয়টস মুভিতে আমির খানের চরিত্রটাকে দেখা যায়, ডিগ্রি নয়, জ্ঞানের পেছনে ছুটতে, শেষ পর্যন্ত সে ডিগ্রির বিনিময়ে নয়, জ্ঞানের বিনিময়েই সাকসেসফুল হয়। তাই সে একটা বস ক্যারেকটার। ব্যাপারটাকে একটু ঘুরায়া চিন্তা করেন। আমির খান জানত…

সুইডেনে টিউশন ফি দিয়া যাওয়াটা কেন বোকামি?

প্রথম ও শেষ কথাঃ টিউশন ফি দিয়ে সুইডেনে পড়তে আইসেন না। এখন সাড়ে চার লাখ টাকা দেন, পার্টটাইম কামলা দিয়া বিশ বিশ চল্লিশ লাখ টাকা টিউশন ফি এর বাকিটা দিবেন + নিজের থাকা খাওয়ার খরচ চালাইবেন, এইটা যেই এজেন্সি কইছে, তার মুখে ছ্যাপ দিয়া আসেন। কারণ জানতে চাইলে, বাকিটা পড়তে পারেন, না চাইলে নাই। If…

ট্রান্সলেশন

I am sitting beside my youngerself. বাসের পেছনের কোণার সিটটায় একটা ছেলে ক্লাস সিক্সের বই খুলে পড়ছে। ১৯৯৮ সালে যখন আমি ক্লাস সিক্সে পড়তাম তখন গল্পের বই পড়ার উদ্দাম নেশা আমার। স্কুলের ব্যাগে বই নিয়ে বাথরুমে বসে, ক্লাস ফাঁকি দিয়ে কিংবা বাসের সিটে বসে ডুবে যেতাম কিশোর, মুসা, রবিনদের জগতে। তখন মুরুব্বীরা গল্পের বই পড়াকে…

বিসিএস দিন – মাসকাওয়াথ আহসান

চায়ের স্টলে বসে একদল লোক টিভিতে খবর দেখছিলো। সেইখানে একটি প্রতিবেদনে একজন মান্যবর বলেন, কী যেন বলেন; হৈ চৈ-এ শুধু শোনা যায় বিসিএস দিন। অমনি একদল মিছিল করতে করতে বেরিয়ে যায় চাখানা থেকে; উন্নয়নে অংশ নিন; বিসিএস দিন; বিসিএস দিন। এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা এলাকার ইউএনও মহোদয়ের দপ্তরের সামনে আগরবাতি জ্বেলে দিয়ে আসে। হিন্দুরা একটু ধুপ…

এক সপ্তার মইধ্যেই লাগামু!

আজকে ভার্সিটি থেকে বের হইছি, তখন ভার্সিটির তিনটা পোলা পাশ দিয়ে যাইতেছে। আমারে দেইখা স্যার মনে হয় না, প্লাস অন্য ফ্যাকাল্টির বইলা অনেকেই চিনে না এখনো। গলায় আইডিও ছিল না। একটা পোলায় কইতাছে, মাম্মা আমার তো একটা প্রেম হইছে মামা! মাইয়ায় তো আমার লিগা পাগল পুরা! বিবিএতে পড়ে। লগে লগে বাকি গুলাও, তাই নাকি মাম্মা,…

বাংলাদেশের মেয়েরা সবচেয়ে বেশি স্মোক করেঃ বায়াসড স্যাম্পল?

ক্রোয়েশিয়ান পাবলিক হেলথের একটা রিপোর্টে নাকি দেখা গেছে যে বাংলাদেশের মেয়েরা সবচেয়েই বেশি সিগারেট খায়। যেই লোক সার্ভে করছে, সে সম্ভবত টিএসসি এলাকাতে সন্ধ্যার পরে গিয়া ডাটা কালেকশন করছে। না হইলে এইরকম গাঁজাখুরি রেজাল্ট কেমনে আসে? যদি এইটা সত্যি হয়, তাইলে রিসার্চারের উদ্দেশ্য নিয়া ডাউট দেয়া যাইতে পারে। ইনফারেন্স নামে একটা জিনিস শিখাইছিল আমাদেরকে কেটিএইচের…

নকল করার দাবিতে আন্দোলন!

গতকালকে সকাল ১০:৪০ এ ক্লাস ছিল। আগের দিন ক্লাসের প্রিপারেশন নিতে পারি নাই, তাই ভোরে সকাল সকাল ভার্সিটিতে আইসা পড়ছি। সোয়া দশটার দিকে প্রিপারেশন শেষ কইরা একটু নিচে নামছিলাম একটা বিড়ির লগে এককাপ চা খাইতে। বিড়ি টানতে টানতেই দেখি বিশাল চিল্লাপাল্লা। মুহুর্তের মধ্যেই লোকজন জড়ো হইয়া গেল, আর সিটি কলেজের ড্রেস পরা পোলাপানের দৌড়াদৌড়ি। দুই…

দেশি ঠান্ডা ভার্সেস বিদেশি ঠান্ডা

মনে মনে একটা পাট ছিল, হ্যাহ, মাইনাস ২৫ ঠান্ডা খায়া আসছি, দেশের ১৪ ডিগ্রি তো ডাইল ভাত। সকালে বাথরুমে গিয়া সেই ভুল ভাঙছে। #সুপারি 2011 থিকা 2014 চারটা উইন্টারেই বিদেশের গরম পানি, হিটিং পায়া ভুইলা গেছিলাম। The winter is not half as tough in Sweden as it is Bangladesh. Even if it is only 14…

প্রাতিষ্ঠানিক ডিগ্রি একাল সেকাল- পর্ব ১

লেখাটা মাসউদুল হক ভাইয়ের। বড় ভাইর অনুরোধে এখানে শেয়ার করা। গ্রাম দেশে আগে নির্বাচন হলে বিভিন্ন প্রার্থী নামের পরে আব্দুর রহিম, এম এ, কুদ্দুস বিএসসি এইসব ডিগ্রি র কথা বলে অন্যের চেয়ে নিজের যোগ্যতা কতটা বড় তা প্রমানের চেষ্টা চলতো। এই চল এখনো অল্প বিস্তর আছে। কিন্তু নির্বাচনী বৈতরণী পার হতে গিয়ে এই সব ডিগ্রির…

গাছ ভুদাইয়ের রিসার্চ কথন

কলেজে লাঞ্চের এক ঘন্টা পর আমাদেরকে ঘাড় ধইরা ক্লাসরুমে নিয়া যাওয়া হইতো পড়ালেখা করানোর জন্য। ফার্স্ট প্রেপ নামের এই টাইমটাতে 95% পোলাপান হয় ঘুমাইতো, না হইলে বদমাইশি করত। বন্ধু আহসান উদ্দিন পল্লব সাহেব ফার্স্ট প্রেপে ফর্মের সবার কাছে ঘুইরা ঘুইরা সবার বাসার টেলিফোন আর মোবাইল নাম্বার লিস্ট করতেছে। গুড ইনিশিয়েটিভ। লিস্ট করা শেষে সে ক্যালকুলেটর…

আপনি কি মাজহাবী না সালাফী?

Originally posted on চিন্তাশীল মুসলিমের ব্লগ:
২০১৪ সালের কথা। প্রায় ২ বছর পর কানাডা থেকে বাংলাদেশ গিয়েছি। মসজিদে জুম’আর নামাজ পড়তে যেয়ে অবাক হয়ে গেলাম। ইমাম সাহেব তাঁর খুতবার একটা বিশেষ অংশ জুড়ে অত্যন্ত অপ্রাসংগিকভাবে বলতে লাগলেন – “মাজহাব কেন মানতেই হবে?” যারা মাজহাব মানে না তাদের সম্পর্কে তিনি আপত্তিকর ও আক্রমণাত্মক কথাবার্তা বলা শুরু করলেন। আর বক্তব্য…

লাল সবুজের পাগলা

সে হারতে পারে হয়তো। কিন্তু সে পরাজিত হয় না। এই মেলবোর্নেই, অনেকের মতে, স্যার ডোনাল্ড ব্রাডম্যান খেলেছিলেন তার ক্যারিয়ারের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ইনিংসটা। ১৯৩৬-৩৭ এর সেই অ্যাশেজে, সিরিজের প্রথম দুই টেস্ট হেরে যাওয়ায় প্রশ্ন উঠে গেছে যে অধিনায়কত্বের চাপ ব্যাটসম্যান স্যার ডনকে শেষই করে দিলো কি না। বৃষ্টি বিঘ্নিত এক ঘটনাবহুল ম্যাচে এই মেলবোর্নেই দ্বিতীয় ইনিংসে…