কাকের হৃদয়ে বসন্ত

কেন যেন পরীক্ষা এলেই আমার ব্লগ লিখতে ইচ্ছে করে। লিখেও রাখতাম।
সেকেন্ড ইয়ারের শেষের দিকে বড় ধরনের একটা ছ্যাঁকা খেলাম। সেই সময়ের উত্তপ্ত মস্তিষ্কের অনেক কল্পনাই লিখে রেখেছিলাম পিসিতে। একান্ত সেসব স্মৃতি আর কিছু অপ্রকাশিত গল্প নিয়ে সকল হাসি কান্নার উর্ধ্বে চলে গেল আমার হার্ডডিস্কটা। ফেরানোর অনেক চেষ্টা বিফল করে দিয়ে তারা আর ফিরে এল না।
নাহ, কাল ইকোনোমিক্স পরীক্ষা। আমি বুঝি না, এত কষ্ট করে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়তে আসলাম, এখন আবার কেন আমাকে ইনফ্লেশন অফ মানি পড়তে হবে। অবশ্য ইকোনোমিক্স এর স্যারটা বুয়েট থেকে আসেন, আমাদের চেয়ে বড় ডজার। সপ্তাহে দুদিন ক্লাসের জায়গায় উনি ক্লাস নিতে একদিন, বৃহস্পতিবার। শনিবার এন.এস.ইউ আর আই.ইউ.বি এর হিট হট ললনাময় এসি করা ক্লাস না নিয়ে একপাল ধামড়া বাঙালি আর কুচকুচে কালো আফ্রিকানদের মাঝে ফ্যানের গরম বাতাসে ক্লাস নেয়ার কি কোন মানে হয়? তাই উনি ক্লাসে অ্যাটেনডেন্স নেন না। অথরিটি যাতে ব্যাপারটা ধরতে না পারে তাই পাট মেরে প্রথম দিন বললেন, You dont have to come in class for attendance. If you feel interested in my lecture, definitely you all will come, thats the speciality of my lecture. হামবা হামবা হামবা….
শুনে সেদিনই মনে মনে বলে ফেললাম, স্যার, তাইলে আর আপনের লগে আমার দেখা হইতেছে না… >:) >:) >:)

আবার বোধহয় ব্লগ গরম হইছে কিছু একটা নিয়া। পড়তাছি, আর হাসতাছি। ইদানিং আমার খুব হাসি পায়। গত দশ বছরে অনেক কিছু দেখে ফেলেছি, মনে হয় তার চেয়েও বেশি দেখে ফেলেছি গত এক বছরে। বহুত পরিবর্তন, বদলাইনা শুধু আমি। যেমনটি ছিলাম, তেমনটিই রয়ে যাই, খাপ খাওয়াতে পারি না।
তুই কেমন আছিস? আমার কথা কি তোর মনে পড়ে না? একটি বারের জন্যও কি জানতে ইচ্ছে করেনা আমি কেমন আছি? তোর বাসার নিচে গিয়ে কি দাঁড়িয়ে থাকব?
টাইপ করা শুরু করলে থামানো মুশকিল।
সোলাইমানলিপি ফন্টটা ঝামেলা শুরু করছে, বিজোড় ফন্ট সাইজে মাত্রা দেখায় না। আজব। পিসিটাও পুরা গোল্লায় যাইতেছে।
আরো লেখতে ইচ্ছা করতাছে। পরে লেখুম। আগে পাবলিশ কইরা নেই। কই পাবলিশ করুম বুঝতে পারতেছি না, আপাতত ওয়ার্ডপ্রসেই যাই, প্রেস দিস নামে এক খান জবের জিনিস বাইর করছে শালারা, পুরা হাইফাই, ব্লগ পাবলিশ কয়েকটা টোকার ব্যাপার মাত্র।

One Comment Add yours

  1. uglyduckblog says:

    পুরান জিনিস পড়তে ভালই লাগতেছে, টাইম মেশিনে ঘুরার মত। আমার পুরান পিসির হার্ডডিস্কে একটা ফোল্ডারে কিছু লেখা ছিল, সেই লেখা গুলা কি কি নিয়া ছিল মনে নাই এখন আর, সেই গুলি এখন পড়তে পারলে হয়তো আবার অনেক ভাল লাগত।😦

    Like

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s